All Public examination Results

এক যাত্রীর জীবনরক্ষায় মাঝ আকাশে ৩০ টন জ্বালানি ফেলল পাইলট








একজন যাত্রীর জীবন বাঁচানোর জন্য উড়োজাহাজকে অবতরণের উপযোগী করতে মাঝ-আকাশে ৩০ টন জ্বালানি ফেলে দিয়েছেন চীনের একটি উড়োজাহাজ সংস্থার পাইলট।

সিঙ্গাপুরের বিভিন্ন পত্রিকার বরাত দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের ফক্স নিউজ জানিয়েছে, চায়না ইস্টার্ন এয়ারলাইনসের উড়োজাহাজটি চীনের সাংহাই থেকে যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্কে যাচ্ছিল। তখন ৬০-বছর-বয়সী এক নারীর শ্বাসপ্রশ্বাসের সমস্যা শুরু হয়।

ক্রুরা ওই বৃদ্ধাকে বিভিন্নভাবে সাহায্য করার চেষ্টা করে। তারা তাকে ইকোনমি ক্লাস থেকে সরিয়ে উন্নত বিজনেস ক্লাসে নিয়ে যান। সেখানে তারা অসুস্থ যাত্রীকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়, কিন্তু তিনি অচেতন হয়ে ঘুমিয়ে পড়েন। ওই যাত্রী তার মেয়ের সাথে ভ্রমণ করছিলেন।

উড়োজাহাজের পাইলট গো জিয়ান সিদ্ধান্ত নেন, ওই যাত্রীকে আরও উন্নত চিকিৎসা দেয়া প্রয়োজন, কিন্তু উড়ন্ত উড়োজাহাজে সেটা দেয়া সম্ভব নয়।

আরও দেখুনঃ

আলাস্কার টেড স্টিভেন্স অ্যাংকরেজ উড়োজাহাজবন্দরে অবতরণের উপযোগী করতে উড়ন্ত উড়োজাহাজের ৩০ টন জ্বালানি ফেলে দেন পাইলট।

জিয়ান বলেন, ‘উড়োজাহাজের ওজন তখন ছিল ২৮২ টন। উড়োজাহাজের ওজন সর্বোচ্চ যতটা হলে সেটি অবতরণ করা যায়, এই ওজন তার চেয়ে অনেক বেশি। অসুস্থ যাত্রীকে চিকিৎসা দেয়ার জন্য, উড়োজাহাজটির জ্বালানি ফেলে দিতে দিতে নিচে নামিয়ে আনতে হয়েছিল।’

অবতরণের পর অজ্ঞাতনামা ওই যাত্রীকে দ্রুত আলাস্কার একটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। পরে উড়োজাহাজটি এয়ারপোর্ট থেকে আবার জ্বালানি নিয়ে নিউ ইয়র্কের দিকে উড়ে যায়।

পত্রিকার খবরে বলা হয় ওই যাত্রী সুস্থ হয়ে এক দিন পরে হাসপাতাল থেকে ছাড়া পান।

Loading...